ঢাকা থেকে কক্সবাজার দূরত্ব কত কিলোমিটার? কিভাবে যাবেন এবং বিমান, ট্রেন এবং বাস ভাড়া কত?

ঢাকা থেকে কক্সবাজার শহর পর্যন্ত রাস্তা ভেদে দূরত্ব প্রায় ৪০০ কিলোমিটার। বিমান, ট্রেন বা বাস গাড়ির মাধ্যমে খুব সহজে ৮-১৫ ঘন্টার মধ্যে পৌছে যাওয়া যায়, তবে বিমানের ক্ষেত্রে দের থেকে দুই ঘন্টায় পৌছাতে পারবেন। বিমান, ট্রেন এবং বাস গাড়ির ভাড়া ৭০০ টাকা থেকে শুরু করে ১০,৫০০ টাকা পর্যন্ত হয়ে থাকে বিভিন্ন যানবাহন ভেদে।
 
টিকপ্রেস তথ্য ভান্ডার ব্লগে আপনাকে স্বাগতম!
সম্মানিত পাঠক, আমি O.F SAGOR একজন প্রফেশনাল ট্রাভেল ব্লগার। আজকে TickPress এর এই আর্টিকেল বা পোস্টের মাধ্যমে, DHAKA TO COX'S BAZAR বিষয় সম্পর্কে জানতে পারবেন, নিচে স্টেপ বাই স্টেপ উল্লেখ করা হলো কনটেন্ট টেবিলের মাধ্যমেঃ
 
কন্টেন্ট টেবিলঃ
নিচের যে কোন পয়েন্টে ক্লিক/টাচ করলে, অটো ঐ পয়েন্টের সেকসনে চলে যাবে।
  1. ☛ ঢাকা টু কক্সবাজার দূরত্ব কত কিলোমিটার?  
  2. ☛ ঢাকা থেকে কক্সবাজার কিভাবে যাবেন?  
  3. ☛ ঢাকা থেকে কক্সবাজার বিমান, ট্রেন নাকি বাস গাড়ি কোনটা বেসি সুবিধা হবে?  
  4. ☛ ঢাকা টু কক্সবাজার কি কি বাস গাড়ি দিয়ে যাওয়া যায় এবং শর্ট রিভিউ  
  5. ☛ ঢাকা টু কক্সবাজার বিমান, ট্রেন বা বাস গাড়ির কাউন্টার লোকেশন  
  6. ☛ Dhaka To Cox's Bazar যেতে যানবাহন অনুযায়ী জনপ্রতি ভাড়া কত পরবে?  
  7. ☛ ঢাকা থেকে কক্সবাজার যেতে কতক্ষণ সময় লাগবে?  
  8. ☛ ঢাকা থেকে কক্সবাজার শহর পর্যন্ত যাওয়ার পথে কোন কোন বাস স্টেশন বা জায়গা গুলো দেখতে পাবেন?
  9. ☛ শেষ কথা
 

ঢাকা টু কক্সবাজার দূরত্ব কত কিলোমিটার?

ঢাকা থেকে বা ঢাকা টু কক্সবাজার শহর পর্যন্ত দূরত্ব প্রায় ৪০০ কিলোমিটার, জায়গা এবং রাস্তা ভেদে কিছুটা কম বেশি হতে পারে।

নিচে নির্দিষ্ট কিছু তথ্য শেয়ার করা হয়েছে, যার ফলে আপনি জানতে পারবেন ঢাকার বিভিন্ন জায়গা থেকে কক্সবাজার বিভিন্ন জায়গা পর্যন্ত দূরত্ব কত কিলোমিটার।
  • ঢাকা আরামবাগ থেকে কক্সবাজার টোটাল দূরত্ব প্রায় ৩৮৬ কিলোমিটার।
  • ঢাকা কমলাপুর থেকে কক্সবাজার টোটাল প্রায় ৩৮৮ কিলোমিটার।
  • ঢাকা যাত্রাবাড়ী বাস স্টপ থেকে কক্সবাজার টোটাল প্রায় ৩৮২ কিলোমিটার।
  • ঢাকা এয়ারপোর্ট থেকে কক্সবাজার টোটাল প্রায় ৪০৫ কিলোমিটার।
  • ঢাকা উত্তরা আব্দুল্লাহপুর থেকে কক্সবাজার টোটাল প্রায় ৪০৭ কিলোমিটার।
ছোট্ট একটি টিপসঃ গুগল ম্যাপ এপ ব্যবহার করে ওপরের ম্যাপের মত তথ্য, আপনি নিজেও বের করতে পারবেন। তাই প্রথমে গুগল ম্যাপ এপটি ওপেন করুন, এবং আপনি যে জায়গাটির দূরত্ব বের করতে চান, সেই জায়গার নাম লিখে সার্চ করুন, এবং ডাইরেকশনে টাচ করলেই কত কিলোমিটার দূরত্ব তা দেখতে পাবেন।
 

ঢাকা থেকে কক্সবাজার কিভাবে যাবেন?

আপনি মূলত কয়েকটি উপায়ে ঢাকা টু কক্সবাজার যেতে পারবেন, যেমনঃ
  • বিমানের মাধ্যমে
  • ট্রেন গাড়ির মাধ্যমে
  • বাস গাড়ির মাধ্যমে
উপরোক্ত মাধ্যম গুলো থেকে সবচেয়ে বেসি ব্যবহার করা হয় ট্রেন এবং বাস গাড়ি। কারন বিমান ভাড়ার খরচ ট্রেন বা বাস গাড়ির তুলনায় ১০ গুন বেসি হয়ে থাকে।
 

ঢাকা থেকে কক্সবাজার বিমান, ট্রেন নাকি বাস গাড়ি কোনটা বেসি সুবিধা হবে?

ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার জন্য বিমান, ট্রেন অথবা বাস গাড়ি তিনটাতেই সুবিধা। তবে, এই ৩টি যানবাহন থেকে রেংক ০১ বা ০২ নম্বরে থাকবে ট্রেন এবং বাস গাড়ি। কারন বিমানের মাধ্যমে গেলে সময় অনেকটা কম লাগবে ঠিকি তবে ভাড়া বেসি যার ফলে সবাই ট্রেন বাস কে বেছে নেয়।

ট্রেন এবং বাস গাড়ির তুলনায় বিমানের মাধ্যমে ভ্রমন করলে প্রায় ৬-৮ ঘন্টা আগে গন্তব্যে পৌঁছে যেতে পারবেন, এটা শুধু মাত্র ঢাকা টু কক্সবাজার বিমানে যাওয়ার জন্য প্রযোয্য। এখন আমি রিকমেন্ড করবো, ঢাকা থেকে কক্সবাজার যেতে চাইলে, বাস গাড়ি অথবা ট্রেন সিলেক্ট করুন, এতে আপনার সময় না বাচলেও পয়সা বেচে যাবে।
 
অহ হে, একটি সতর্ক বার্তাঃ মনে রাখবেন, যে মাধ্যমেই যাওয়া আসা করেন না কেনো, অপরিচিত কেউ কিছু খেতে স্বাদলে খাবেন না। এবং অবশ্যই সংগে খাবার পানি রাখার চেষ্টা করবেন।
 

ঢাকা টু কক্সবাজার কি কি বাস গাড়ি দিয়ে যাওয়া যায় এবং শর্ট রিভিউ

ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার জন্য অনেক বাস গাড়ি রয়েছে। এর মধ্যে নরমাল এবং ViP এয়ারকন দুই ধরনের বাস গাড়ি পেয়ে যাবেন। ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়া আসা করে এমন কিছু বাস গাড়ির নাম নিচে উল্লেখ করা হলোঃ

 

  • RELAX KING SERVICE নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়িঃ এটি একটি নন-এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই নন-এসি গাড়িটির চাহিদা আছে যথেষ্ট।

  • S.ALAM SERVICE নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়িঃ এটি একটি নন-এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই নন-এসি গাড়িটির চাহিদাও আছে বেস।

 

  • SAINTMARTIN PARIBAHAN এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা রয়েছে।

  • SENJUTI TRAVELS এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • EURO COACH এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • গ্রীনলাইন পরিবহন (স্লিপার) এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • গ্রীনলাইন পরিবহন এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • সোহাগ পরিবহন এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • শ্যামলী পরিবহন (এসপি) এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • শ্যামলী পরিবহন (এনআর) এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • দেশ ট্রাভেলস এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • এনা পরিবহন এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • ঈগল পরিবহন এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • সেন্টমার্টিন পরিবহন এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • সেন্ট মার্টিন হাইন্ডাই এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • হানিফ এন্টারপ্রাইজ এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • তুবা লাইন এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • রয়েল কোচ এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।

  • সৌদিয়া কোচ সার্ভিস এয়ারকন বা এসি বাস গাড়িঃ এটি একটি এয়ারকন ViP গাড়ি, কাউন্টারে গিয়ে অথবা অনলাইনে ঘরে বসেই টিকেট কাটতে পারবেন। ড্রাইভার থেকে শুরু করে স্টাফরা অনেক দক্ষ এবং ব্যবহারও যথেষ্ঠ ভালো। ঢাকা থেকে কক্সবাজার থেকে ঢাকা এই এসি গাড়িটির চাহিদা অন্যদের মত ভালো রয়েছে।
 

ঢাকা টু কক্সবাজার বিমান, ট্রেন বা বাস গাড়ির কাউন্টার লোকেশন

ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার জন্য ট্রেন এবং কিছু বাস গাড়ি রয়েছে, এর মধ্যে ট্রেন, এয়ারকন, নন এয়ারকন, ভি,আই,পি এবং লোকাল বাসের কাউন্টারের লোকেশন কোথায় এই পার্টে জানতে পারবেন। আমি স্টেপ বাই স্টেপ প্রতিটি বাসের কাউন্টার ঠিকানা এবং লিংকআপ করে দিবো গুগল ম্যাপের, যার ফলে জায়গা চিনতে না পারলেও ম্যাপ ডাইরেকশন ধরে বাস কাউন্টার পর্যন্ত পৌছে যেতে পারবেন খুব সহজে। চলুন কাউন্টার সম্পর্কে নিচে স্টেপ বাই স্টেপ জেনে নেইঃ
 

 রিলাক্স কিং সার্ভিস নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়ির কাউন্টারঃ ঢাকা টু কক্সবাজার নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়ির মাধ্যমে যেতে চাইলে, আপনাকে কাউন্টারে সরাসরি গিয়ে অথবা অনলাইনে টিকেট কাটতে হবে। এই বাস গাড়ির কাউন্টার আপনি রাজধানী ঢাকার আরামবাগ বাস স্টপে গেলে পেয়ে যাবেন।

  • রিলাক্স কিং সার্ভিস নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়ির আরামবাগ বাস কাউন্টার গুগল ম্যাপ লোকেশনের জন্য এখানে ক্লিক/টাচ করুন
 
 S.ALAM SERVICE নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়ির কাউন্টারঃ ঢাকা থেকে কক্সবাজার S.ALAM SERVICE নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাস গাড়ি দিয়ে যেতে চাইলে, আপনাকে কমলাপুরে যেতে হবে।
 SAINTMARTIN PARIBAHAN এয়ারকন বা এসি বাস গাড়ির বাস কাউন্টারঃ ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার জন্য SAINTMARTIN PARIBAHAN গাড়ির চাহিদা অপরিসীম। এই বাস গাড়ির কাউন্টার পেয়ে যাবেন রাজধানী ঢাকার আরামবাগে।
 
  • SAINTMARTIN PARIBAHAN এয়ারকন বা এসি বাস গাড়ির আরামবাগ বাস কাউন্টারের গুগল ম্যাপ লোকেশনের জন্য এখানে ক্লিক/টাচ করুন
 
 SENJUTI TRAVELS এয়ারকন বা এসি গাড়ির বাস কাউন্টারঃ ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার জন্য SENJUTI TRAVELS এয়ারকন বা এসি গাড়িও সমান তালে জনপ্রিয়। এই বাস গাড়ির কাউন্টার পেয়ে যাবেন রাজধানী ঢাকার উত্তরা আব্দুল্লাহপুর।
 
 EURO COACH এয়ারকন বা এসি বাস কাউন্টারঃ ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার জন্য EURO COACH এয়ারকন বা এসি গাড়ির চাহিদা অপরিসীম। এই বাস গাড়ির কাউন্টার পেয়ে যাবেন রাজধানী ঢাকার রামপুরা।
 
গুরুত্বপূর্ণ নোটঃ মনে রাখবেন, যে কোন এসি গাড়ির মাধ্যমে জার্নি করার সময়, মাথার ওপর থেকে ভুল করেও এসি বন্ধ করে দিবেন না, যদি বন্ধ করে দেন তাহলে সাফোগেশন হবে এবং গাড়িতে বোমি জনিত সমস্যা হতে পারে।
 

Dhaka To Cox's Bazar যেতে যানবাহন অনুযায়ী জনপ্রতি ভাড়া কত পরবে?

ঢাকা থেকে কক্সবাজার ট্রেন গাড়ির মাধ্যমে যেতে চাইলে আপনাকে ভাড়া গুনতে হবে ৫০০-২০০০ টাকা, ট্রেনের নরমাল বা ViP সিট অনুযায়ী। (ভাড়া যেকোন সময় বাড়তে বা কমতে পারে, তাই অবশ্যই রেল কাউন্টারে গিয়ে যোগাযোগ করুন)
 
ঢাকা থেকে কক্সবাজার বাস গাড়ির মাধ্যমে যেতে চাইলে ভাড়া গুনতে হবে ৮০০-২২০০ টাকা পর্যন্ত বিভিন্ন যানবাহন ভেদে। নিচে বিভিন্ন বাস গাড়ি অনুযায়ী বাস ভাড়া উল্লেখ করা হয়েছে দেখে নিন।
 
✔️ RELAX KING SERVICE নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাসের ভাড়াঃ ঢাকা টু কক্সবাজার রিলাক্স কিং সার্ভিস বাসে যেতে চাইলে জন প্রতি ভাড়া গুনতে হবে ১,১০০ টাকা করে।

✔️ S.ALAM SERVICE নন-এয়ারকন বা এসি ছাড়া বাসের ভাড়াঃ ঢাকা টু কক্সবাজার S.ALAM SERVICE বাসে যেতে চাইলে জন প্রতি ভাড়া গুনতে হবে ১,০০০ টাকা করে।
 
✔️ SAINTMARTIN PARIBAHAN এয়ারকন বা এসি বাসের ভাড়াঃ ঢাকা টু কক্সবাজার SAINTMARTIN PARIBAHAN বাসে যেতে চাইলে জন প্রতি ভাড়া গুনতে হবে ২,০০০ টাকা করে।

✔️ SENJUTI TRAVELS এয়ারকন বা এসি বাসের ভাড়াঃ ঢাকা টু কক্সবাজার SENJUTI TRAVELS বাসে যেতে চাইলে জন প্রতি ভাড়া গুনতে হবে ১,৮০০ টাকা করে।

✔️ EURO COACH এয়ারকন বা এসি বাসের ভাড়াঃ ঢাকা টু কক্সবাজার EURO COACH বাসে যেতে চাইলে জন প্রতি ভাড়া গুনতে হবে ১,৯০০ টাকা করে।

নোটঃ যেকোন সময় ভাড়া বাড়তে বা কমতে পারে, তাই আপডেট বাস ভাড়া সম্পর্কে জানতে কাউন্টারে যোগাযোগ করুন অথবা অনলাইনে চেক করুন।
 

ঢাকা থেকে কক্সবাজার যেতে কতক্ষণ সময় লাগবে?

ঢাকা টু কক্সবাজার বিমানে গেলে ১.৫- ২ ঘন্টায় পৌছে যেতে পারবেন। ট্রেনে গেলে ৯-১০ ঘন্টা এবং বাস গাড়ির মাধ্যমে গেলে ৮-১৫ ঘন্টা লাগবে বিভিন্ন যানবাহন ভেদে। তবে মনে রাখবেন, রাস্তায় যানযট জনিত সমস্য হলে বা না হলে সময় কম বেসি লাগতে পারে।
 

ঢাকা থেকে কক্সবাজার শহর পর্যন্ত যাওয়ার পথে কোন কোন বাস স্টেশন বা জায়গা বা জেলা গুলো দেখতে পাবেন?

ঢাকা থেকে কক্সবাজার যাওয়ার পথে যে সব জায়গা বা বাস স্টেশন গুলো দেখতে পাবেন তা নিচে উল্লেখ করা হলো। ঢাকা থেকে রওনা হওয়ার পর ঢাকার ভিতরের অনেক গুলো স্টেশন রয়েছে যেগুলো উল্লেখ করা হয়নি, শুধুমাত্র ঢাকার বাইরে যেসব জায়গা রয়েছে সেসব জায়গা গুলো সিরিয়াল বাই সিরিয়াল উল্লেখ করা হয়েছে।
 
কুমিল্লা, ফেনী, মীরসরাই, সীতাকুণ্ড, সোনাইছড়ি, সলিমপুর, চট্রগ্রাম, Shikalbaha, পটিয়া ক্রসিং হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ি, শান্তির হাট, পটিয়া, দোহাজারী, সাতকানিয়া, লোহাগাড়া, চকরিয়া এবং রামু।

শেষ কথা

আসা করছি Dhaka - COX'S BAZAR তথ্য গুলো আপনাদের জেনে ভালো লেগেছে। আমাদের প্রতিটি তথ্য আপডেট এবং চেষ্টা করবো সব সময় আপডেট রাখতে। বিশেষ করে ভাড়ার তথ্য গুলো যে কোন সময় পরিবর্তন হতে পারে, তাই আপডেট করার ক্ষেত্রে কিছুটা বিলম্ব হতে পারে। ভাড়ার তথ্য জানতে অবশ্যই কাউন্টার ভিজিট করবেন, এতে সলিড তথ্য পাবেন।
 
Dhaka To COX'S BAZAR বাস ভাড়া ছাড়া অন্য সব তথ্য সব সময় একি রকম থাকবে, তবে পরিবর্তন হলে আমরা যত দূত সম্ভব হয় তা আপডেট করে দিবো। আমাদের তথ্যে কোন প্রকার ভুল আছে বলে মনে হলে, অবশ্যই আমাদের সাথে Contact পেজ থেকে যোগাযোগ করুন। এবং কি ভুল আছে তা উল্ল্যেখ করুন, মনে রাখবেন আপনি শুধু আমাদের উপকার করছেন না, পুরো দেশের মানুষের উপকার করছেন।
 
আমাদের টিপস এবং ট্রিকস এবং নোট গুলো মনে রাখার চেষ্টা করবেন, আশা করি জার্নির সাধারন সমস্যা গুলো হবে না। যদি কোথাও কোন সমস্যায় পরেন, ইমার্জেন্সি হলে বাংলাদেশের যে কোন জায়গায় হউক না কেনো, ৯৯৯ এ কল দিতে ভুলবেন না, ৯৯৯ একটি সরকারি সার্ভিস।

Enjoyed this article? Stay informed by joining our newsletter!

Comments

You must be logged in to post a comment.

Related Articles